ঢাকা ছাড়লেন আরো ১৬৮ জন ব্রিটিশ নাগরিক

প্রকাশিত: ৭:৩৮ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২৬, ২০২০

করোনাভাইরাসের সংক্রমণে যাত্রিবাহী বিমান যোগাযোগ বন্ধ থাকায় বিশেষ ফ্লাইটে দেশে ফিরে যাচ্ছেন ঢাকায় বসবাসরত ব্রিট্রিশ নাগরিকরা। আজ প্রথম দফার শেষ ফ্লাইটে ঢাকা ছেড়ে গেছেন আরও ১৬৮ জন নাগরিক। দ্বিতীয় দফায় আরো পাঁচটি ফ্লাইটের ব্যবস্থা করার কথা জানিয়েছেন ঢাকায় নিযুক্ত যুক্তরাজ্যের হাইকমিশনার রবার্ট ডিকসন।

রবিবার বিকেলে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দও থেকে ব্রিটিশ এয়ারওয়েজের একটি ফ্লাইট লন্ডনের উদ্দেশে ছেড়ে গেছে। বিকেল ৩টা ১৮ মিনিটে ফ্লাইটটি শাহজালাল বিমানবন্দরে থেকে লন্ডনের হিথ্রো বিমানবন্দরের উদ্দেশে রওনা হয়। বিমানবন্দরের পরিচালক গ্রুপ ক্যাপ্টেন এ এইচ এম তৌহিদ-উল-আহসান বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

এর আগে শনিবার একই এয়ারওয়েজের ফ্লাইট ঢাকা থেকে লন্ডনে যান ১৭১ ব্রিটিশ নাগরিক। গত ২১ এপ্রিল প্রথম দফায় ১৫৭ জন ব্রিটিশ নাগরিক বাংলাদেশ ছেড়ে যান।

এদিকে রবিবার সকালে ঢাকায় যুক্তরাজ্যের হাইকমিশনার রবার্ট ডিকসন ফেইসবুক পাতায় এক ভিডিও বার্তায় জানান, বাংলাদেশ থেকে নিজ নাগরিকদের ফেরত নিতে আরও পাঁচটি ফ্লাইটের ব্যবস্থা করেছে যুক্তরাজ্য। বাংলাদেশে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের প্রেক্ষিতে প্রথম দফায় চারটি ফ্লাইটে সাড়ে আটশ যুক্তরাজ্যের নাগরিকের দেশে ফেরার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

ঢাকায় যুক্তরাজ্য হাইকমিশনের ফেসবুক পেজ থেকে জানা যায়, প্রথম দফায় চারটি ফ্লাইটের পর এবার আরও পাঁচটি ফ্লাইট যুক্তরাজ্যের নাগরিকদের ঢাকা  থেকে লন্ডনে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। ওই পাঁচটি ফ্লাইট এপ্রিলের ২৯ এবং মে মাসের ১, ৩, ৫ ও ৭ তারিখ ঢাকা ছেড়ে যাবে। এর মধ্যে ৩ মের ফ্লাইটটি যুক্তরাজ্যের নাগরিকদের সরাসরি ঢাকা থেকে লন্ডনে নিয়ে যাবে। বাকী চারটি ফ্লাইট সিলেটে অবস্থানরত যুক্তরাজ্যের নাগরিকদের ঢাকা হয়ে লন্ডন নিয়ে যাবে।

এদিকে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত যুক্তরাজ্যে ২০ হাজার ৩১৯ জন মারা গেছেন। যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্য বিভাগ এ তথ্য প্রকাশ করে বিষয়টিকে ‘নজিরবিহীন দুঃখজনক’ ঘটনা হিসেবে আখ্যায়িত করেছে।

বিবিসির তথ্য অনুযায়ি, দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১ লাখ ৪৯ হাজার ৫৬৯ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এ ভাইরাসটির আক্রমণ থেকে সুস্থ হয়েছেন মাত্র ৭৭৪ জন। যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনও করোনাভাইরাসে আক্রান্ত। জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে থাকা জনসন এখন অনেকটাই সুস্থ।