ডোবায় গৃহবধূর লাশ, স্বামী আটক

প্রকাশিত: ১১:৫০ পূর্বাহ্ণ, মে ৬, ২০২০

গুড়ার নন্দীগ্রামে ডোবা থেকে ফাতেমা খাতুন (২০) নামে এক গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার (৬ মে) সকাল ১০টার দিকে উপজেলার বুড়ইল ইউনিয়নের কৈগাড়ী গ্রামের একটি ডোবা থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত ফাতেমা খাতুন কৈগাড়ি গ্রামের আল-আমিনের (২২) স্ত্রী এবং ফোকপাল গ্রামের রমজান আলীর মেয়ে। এ ঘটনায় নিহত ফাতেমার স্বামী আল-আমিনকে আটক করেছে পুলিশ।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, দুই বছর আগে আল-আমিনের সঙ্গে ফাতেমার বিয়ে হয়। তাদের সংসারে ১০ মাস বয়সী একটি ছেলে সন্তান রযেছে। আল-আমিন পেশায় রাজমিস্ত্রীর সহকারী।

আটক আল-আমিন জানান, সম্প্রতি করোনাভাইরাসের কারণে তিনি কর্মহীন হয়ে পড়েন। মঙ্গলবার (৫ মে) বিকেলে ফাতেমা তার নানি শাশুড়ির বাড়ি থেকে তিন কেজি চাল নিয়ে আসেন। এ নিয়ে তিনি স্ত্রীকে চড়থাপ্পড় মারেন। সন্ধ্যার পর থেকে ফাতেমা বাড়িতে সন্তান রেখে নিখোঁজ হন।

এদিকে বুধবার সকালে গ্রামের লোকজন বাড়ির পাশে ডোবার পানিতে ফাতেমার মরদেহ দেখতে পান। পরে থানায় খবর দেয়া হলে পুলিশ মরদেহটি উদ্ধার করে।

নন্দীগ্রাম থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শওকত কবীর বলেন, ঘটনার রহস্য উদঘাটনে আটক আল-আমিনকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। নিহতের পরিবারের সদস্যদেরকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে.